স্মার্ট ফোন বিস্ফোরণের কারন

Spread the love

স্মার্ট ফোন বিস্ফোরণের কারন

স্মার্টফোন বিস্ফোরণের খবর পাওয়া যায় মাঝেমধ্যেই। এতে আহত তো হচ্ছেই সেই সঙ্গে মারাও যাচ্ছেন ব্যবহারকারী। তবে জানেন কি, স্মার্টফোন ব্যবহারের কিছু ভুল এই বিস্ফোরণের জন্য দায়ী। শুধু স্মার্টফোনই নয়, সেই সঙ্গে বিভিন্ন ডিভাইস স্মার্ট টিভি, হেডফোনও বিস্ফোরণের খবর শোনা যায়।

  • স্মার্টফোন বিস্ফোরণের অন্যতম কারণ হচ্ছে ফোন গরম হয়ে যাওয়া। তাই ফোন যেন গরম না হয়ে যায় সেদিকে খেয়াল রাখুন। এজন্য অতিরিক্ত চার্জ দেওয়া থেকে বিরত থাকুন।
  • ফোন চার্জে দিয়ে অনেকেই কথা বলেন, গেম গেলেন কিংবা ফেসবুক স্ক্রোল করেন। এগুলো একেবারেই করা যাবে না। এতে ফোন গরম হয়ে হাতেই বিস্ফোরণ ঘটতে পারে। ফোনের সঙ্গে যে চার্জার দিয়ে দেওয়া হয়, চার্জ দিতে সেটি ব্যবহার করা যথোপযুক্ত। একই রকম দেখালেও নিম্নমানের চার্জার ব্যবহার করলে ফোন গরম হয়ে যেতে পারে। খারাপ হয়ে যেতে পারে ভেতরের যন্ত্রপাতি। এমনকি ফোনের ব্যাটারিতে দেখা দিতে পারে শর্ট সার্কিটের সমস্যা। যে কোনো সময় বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটতে পারে।
  • ফোনের সঙ্গে যে চার্জার দিয়ে দেওয়া হয়, চার্জ দিতে সেটি ব্যবহার করা যথোপযুক্ত। একই রকম দেখালেও নিম্নমানের চার্জার ব্যবহার করলে ফোন গরম হয়ে যেতে পারে। খারাপ হয়ে যেতে পারে ভেতরের যন্ত্রপাতি। এমনকি ফোনের ব্যাটারিতে দেখা দিতে পারে শর্ট সার্কিটের সমস্যা। যে কোনো সময় বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটতে পারে।
  • অনেক সময় ফোনের ত্রুটির কারণেও বিস্ফোরণ ঘটতে পারে। এটি হতে পারে নির্মাণের সময় কিংবা ব্যবহারের সময়। তাই যখনই স্মার্টফোনে কোনো ত্রুটি দেখা দেবে তখনই সার্ভিসিং করান। ত্রুটিযুক্ত স্মার্টফোন ব্যবহার করা একেবারেই ঠিক হবে না। ত্রুটির কারণেই ফোনের ভেতরে থাকা লিথিয়াম আয়ন ব্যাটারি বিস্ফোরিত হয়।
  • বিদ্যুতের কানেকশনে ত্রুটিও স্মার্টফোন বিস্ফোরণের কারণ হতে পারে। অনেক সময় দেখা যায় যে দেয়ালের বৈদ্যুতিক সকেটগুলো দেওয়া এবং সেখানেই স্মার্টফোন চার্জ দিচ্ছেন। এতে শর্ট সার্কিট হয়ে যে কোনো সময় স্মার্টফোন বিস্ফোরণ হতে পারে।
  • দীর্ঘক্ষণ সূর্যের নিচে ফোন রাখবে না। রোদে চার্জ করবেন না ফোন। এমন কি অতিরিক্ত গরম ও আর্দ্র জায়গায় ফোন চার্জ এড়িয়ে চলুন।
  • পুরোনো স্মার্টফোন বিস্ফোরণের ঘটনা বেশি ঘটে। তাই অনেক বেশি পুরোনো মডেল বা অনেকদিন ধরে একই ফোন ব্যবহার এড়িয়ে চলুন। আবার অনেকে ফোন পুরোনো হলে অনেকেই পাড়ার দোকান থেকে ব্যাটারি বদল করেন। বেশিরভাগ সময় তা কোম্পানির আসল ব্যাটারি হয় না। নকল ব্যাটারি বিস্ফোরণের সম্ভাবনা বেশি থাকে। (সূত্র টাইমস অব ইন্ডিয়া)

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *